1. kaium.hrd@gmail.com : ময়মনসিংহ লাইভ ডেস্ক : ময়মনসিংহ লাইভ ডেস্ক
ময়মনসিংহে অবৈধ হাসপাতাল,ক্লিনিকে সরকারি ডাক্তারদের রমরমা ব্যবসা
রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৪:৪২ পূর্বাহ্ন

ময়মনসিংহে অবৈধ হাসপাতাল,ক্লিনিকে সরকারি ডাক্তারদের রমরমা ব্যবসা

মো: আব্দুল কাইয়ুম
  • আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪
MMCH-Mymensingh-Medicale-College-Hospital

ময়মনসিংহ মেডিকেলের চারপাশের এলাকায় চলছে অসংখ্য অবৈধ প্রাইভেট হাসপাতাল, ক্লিনিক, ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও ল্যাবের রমরমা ব্যবসা। আর এসব অবৈধ হাসপাতাল ও ক্লিনিকে নিয়মিত চেম্বার করছেন ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালসহ বিভিন্ন সরকারি হাসপাতালের অনেক ডাক্তার। শুধু চেম্বারই করছেন না, নির্দিষ্ট ডায়াগনস্টিক সেন্টার থেকে রোগ নির্ণয়ের বিভিন্ন পরীক্ষা করাতে বাধ্য করছেন। রোগীরা তাদের পছন্দমতো কোন ডায়াগনস্টিক সেন্টার থেকে পরীক্ষা করিয়ে নিলে সেসব ল্যাব রিপোর্ট গ্রহণ না করে দালাল চক্রের তৎপরতায় পুনরায় পরীক্ষার জন্য নির্দিষ্ট ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পাঠানো হয়।

এদিকে অবৈধ হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারে সরকারি হাসপাতালের ডাক্তরদের চেম্বার থাকায় নিয়মিত অভিযানও পরিচালনা করতে পারছে না স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। কিছু দিন আগেও ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতল কর্তৃপক্ষকে অবৈধ হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের সাথে সরকারি হাসপাতালের ডাক্তারদের সম্পৃক্ততা না রাখতে নির্দেশনা দেয় ময়মনসিংহ স্বাস্থ্য বিভাগ। কিন্তু তাতেও কাজ হচ্ছে না। বরংচ ময়মনসিংহ স্বাস্থ্য বিভাগের নির্দেশনা উপক্ষো করেই সরকারি হাসপাতালের ডাক্তাররা অজ্ঞাত কারণেই এসব অবৈধ হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের সাথে জড়িত রয়েছেন। প্রতিদিন চেম্বার করছেন এসব অবৈধ হাসপাতাল ও ক্লিনিকে। আর এতে করে প্রতারণা ও হয়রানির শিকার হচ্ছেন সেবা নিতে আসা রোগীরা।

ময়মনসিংহ নগরী ঘুরে দেখা যায়, ব্যাঙের ছাতার মতো ময়মনসিংহ নগরীর চরপাড়া, নয়াপাড়া, কপি ক্ষেত, মাসকান্দা, ব্রাহ্মপল্লী, বাঘমারা, ভাটিকাশর, কৃষ্টপুর, পাটগুদাম, রামকৃষ্ণমিশন রোড, সাহেবআলী রোড, চামড়াগুদাম ও কালিবাড়ি রোডসহ বিভিন্ন অলিগলিতে গড়ে উঠেছে নামে বেনামে প্রায় ৫’শ প্রাইভেট হাসপাতাল, ক্লিনিক, ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও প্যাথলজি ল্যাব। বিশেষ করে ময়মনসিংহ মেডিকেলের চারপাশে এসব অবৈধ হাসপাতাল, ক্লিনিক ও ল্যাবের ছড়াছড়ি বেশি। নানান সময়ে এসব অবৈধ প্রাইভেট হাসপাতাল ও ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসাসহ রোগীরা নানাভাবে প্রতারিত হলেও কোন প্রতিকার মিলছে না। শুধু তাই নয়, ভুল চিকিৎসার ফলে ঘটছে নানান ধরণের অপ্রীতিকর ঘটনাও।

সম্প্রতি সময়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রী ডাঃ সামন্ত লাল সেন অবৈধ ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টার বন্ধের ব্যাপারে কঠোর অবস্থানের কথা ব্যক্ত করলেও স্থানীয় পর‌্যায়ে অনেক ডাক্তার এসব অবৈধ ক্লিনিক ও হাসপাতালের সাথে জড়িত থাকায় ব্যবস্থা নিতেও অনেকবার ভেবে চিন্তে সিদ্ধান্ত নিতে হচ্ছে ময়মনসিংহের স্বাস্থ্য বিভাগকে। তারপরও ময়মনসিংহ স্বাস্থ্য বিভাগ প্রতি সপ্তাহেই ময়মনসিংহ নগরীতে অভিযান পরিচালনা করছে। কিন্তু তারপরও স্বাস্থ্য বিভাগের এসব অভিযানকে আমলে নিচ্ছে না অবৈধ হাসপাতাল, ক্লিনিকে চিকিৎসা ব্যভসায় জড়িত সরকারি হাসপাতালের ডাক্তাররা।

এদিকে গত রবিবার ময়মনসিংহের ১০টি অবৈধ ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারে সিলগালা করেছে ময়মনসিংহ স্বাস্থ্য বিভাগ। ময়মনসিংহ নগরীর নগরীর চরপাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে এসব প্রতিষ্ঠান বন্ধ করেন ময়মনসিংহ স্বাস্থ্য বিভাগের পরিচালক ডা. প্রদীপ কুমার সাহা।

অভিযান পরিচালনাকালে ডা. প্রদীপ কুমার সাহা বলেন, রবিবার ২০টি ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারে অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। এর মধ্যে নিবন্ধন না থাকাসহ নানা সমস্যার কারনে ১০টি সিলগালা করা হয়েছে। বাকীগুলোকে আগামী দুই সপ্তাহর মধ্যে ভেতরের পরিবেশ ভালো করাসহ সকল কাগজপত্র আপডেট করতে বলা হয়েছে। তা না হলে আবারও অভিযান চালিয়ে এগুলোকেও বন্ধ করা হবে।

তবে ময়মনসিংহ জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্যমতে, শুধু ময়মনসিংহ শহরেই প্রাইভেট হাসপাতাল, ক্লিনিক ও ল্যাব রয়েছে প্রায় ২০০টি। সরকারি তালিকায় যেসব প্রাইভেট হাসপাতাল ও ক্লিনিক ল্যাব রয়েছে তাদের বেশিরভাগ বছরের পর বছর ধরে নবায়ন করছে না, এতে করে সরকার হারাচ্ছে কোটি কোটি টাকার রাজস্ব অপরদিকে চিকিৎসা সেবা গ্রহীতরা হচ্ছেন প্রতারিত। হাতেগোনা ১০ থেকে ১৫টি ছাড়া অন্যান্য অবৈধ সব হাসপাতাল ও ল্যাব সব নিয়ম ও শর্ত অমান্য করে চলছে । আর এসব অবৈধ প্রতিষ্ঠানের সাথে সরকারি হাসপাতালের ডাক্তাররা চিকিৎসা ব্যবসার সাথে জড়িত থাকায় সরকারি হাসপাতালের চিকিৎসা সেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে সাধারণ মানুষ।

নিউজটি শেয়ার করতে নিচের বাটনগুলোতে চাপ দিন

এই বিভাগের আরও সংবাদ
Mymensingh-IT-Park-Advert
Advert-370
Advert mymensingh live
©MymensinghLive
প্রযুক্তি সহায়তা: ময়মনসিংহ আইটি পার্ক