1. kaium.hrd@gmail.com : ময়মনসিংহ লাইভ ডেস্ক : ময়মনসিংহ লাইভ ডেস্ক
  2. kaiu.m.hrd@gmail.com : newsdesk10 :
  3. 33ewrwr@gmail.com : ময়মনসিংহ লাইভ ডেস্ক : ময়মনসিংহ লাইভ ডেস্ক
প্যানা-ফেস্টুনের শহর ময়মনসিংহ : পরিবেশ বিপর্যয়ের মুখে নগরী
মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১১:০০ পূর্বাহ্ন

প্যানা-ফেস্টুনের শহর ময়মনসিংহ : পরিবেশ বিপর্যয়ের মুখে নগরী

মো. আব্দুল কাইয়ুম
  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০২১
Mymensingh-City-Corporation-Banner-Fastun-Photo-12-3-21

প্যানা সাইনবোর্ড, ব্যানার, ফেস্টুন আর পোস্টারে ছেঁয়ে গেছে ময়মনসিংহ শহর। বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের এসব প্লাস্টিক প্যানা, ব্যানার, ফেস্টুন আর পোস্টারে পরিবেশ বিপর্যয়ের মুখে নগরী।

ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে সৌন্দর্য্য বর্ধনে নগরীর বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ স্থানে স্থাপনা তৈরি করলেও সেগুলো প্যানা সাইনবোর্ড, ব্যানার, পোস্টার আর ফেস্টুনে ঢেকে আছে। যেকারণে সিটি কর্পোরেশনকে দৃশ্যমান পরিচ্ছন্ন করা সম্ভব হচ্ছে না। এসব ব্যানার,ফেস্টুন নগরীর ড্রেনেজ ব্যবস্থায় প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করছে বলেও অভিযোগ তুলছেন নগরবাসী।

Girl in a jacket

এদিকে শহর জুড়ে সাঁটানো প্রভাবশালীদের এসব ব্যানার, ফেস্টুন সরানো সিটি কর্পোরেশনের জন্যও বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে। ময়মনসিংহের পরিবেশবাদীরা নগরীর গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা থেকে ব্যানার, ফেস্টুন সরানোর জন্য সিটি মেয়রসহ প্রশাসনের সর্বোচ্চ মহলকে অবহিত করলেও কার্যত কোন পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ রয়েছে।

ময়মনসিংহ নগরী ঘুরে দেখা যায়, এমন কোনও গুরুত্বপূর্ণ স্থান বাকি নেই যেখানে পোস্টার, ব্যানার আর ফেস্টুন নাই। স্থানীয় বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতা কর্মীরা নিজেদের প্রচারস্থান হিসেবে নগরীর সৌন্দর্মন্ডিত স্থানগুলোকেই বেঁচে নিয়েছে। ব্যানার, ফেস্টুন ও পোস্টার দিয়ে ঢেকে দিচ্ছে শহরের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনাগুলো।

নগরবাসীর অভিযোগ, ময়মনসিংহ নগরীর মধ্যে সৌন্দর্য বলতে কিছু নেই। নগর জুড়ে সাঁটানো পোস্টার, ব্যানার আর ফেস্টুনে শহরের সৌন্দর্য্য নষ্ট হচ্ছে। গুরুত্বপূর্ণ মোড়গুলোতে সৌন্দর্যময় স্থাপনা করা হলেও রাজনৈতিক নেতারা বছর জুড়ে সেগুলো প্রচারণা সামগ্রী দিয়ে ঢেকে রাখেন। ফুটপাত, আইল্যান্ডসহ সৌন্দর্য্য বর্ধনের স্থানগুলোও দখলে নিয়েছে পরিবেশ ধ্বংসকারীরা। ময়মনসিংহ নগরীকে একটি সুন্দর শহর হিসেবে গড়ে তুলতে হলে নগর জুড়ে সাঁটানো এসব ব্যানার-ফেস্টুন অচিরেই তুলে ফেলতে সিটি কর্পোরেশনের জোরালো ভূমিকা দরকার।

শহরের চরপাড়া এলাকার বাসিন্দা মো. ইউসুফ লিটন অভিযোগ করে বলেন, “পোস্টার, ব্যানার আর ফেস্টুনের কারণে শহরের চারদিকের সৌন্দর্য দিন দিন নষ্ট হচ্ছে। আমরা চাই একটি সুন্দর ময়মনসিংহ নগরী। শহর থাকবে পরিপাটি। শহরের ভেতর অন্যান্য এলাকার লোকজন প্রবেশ করলেই যেন তাদের চোখ শান্ত হয়ে যায় এমন এক ময়মনসিংহ নগরী দেখতে চাই।”

পরিবেশ রক্ষা উন্নয়ন আন্দোলনের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট শিব্বির আহমেদ লিটন ময়মনসিংহ লাইভকে বলেন, “ময়মনসিংহ শহরকে যদি সৌন্দর্য্যায়ন করতে হয় তবে শীঘ্রই পোস্টার, ব্যানার, ফেস্টুন আর প্যানা অপরসারণ করতে হবে। পরিবেশের বিপর্যয় ঢেকে আনছে এসব প্যানা, ব্যানার ও ফেস্টুন নিয়ে জনমনে ইদানিং একটি প্রশ্ন প্রকটভাবে উচ্চারিত হচ্ছে যে, ময়মনসিংহ শহর কি প্যানার শহর হয়ে গেল নাকি?”

তিনি অভিযোগ করে আরও বলেন, “শহরের সৌন্দর্য্যায়নে প্যানা ও ব্যানার সরানোর জন্য সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও প্রশাসনকে অবহিত করেছি। কিন্তু আজ পর্যন্ত কোন উদ্যোগ চোখে পড়েনি। ময়মনসিংহ শহর এখন প্যানা সিটির শহর হিসেবে পরিচিতি পাচ্ছে।”

জেলা জনউদ্যোগের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট নজরুল ইসলাম চুন্নু ময়মনসিংহ লাইভকে বলেন, “ব্যানার ও ফেস্টুন ব্যবহারের জন্য নির্দিষ্ট আইন আছে। ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশন ও জেলা প্রশাসনের উচিত-যেসব প্রতিষ্ঠান বা রাজনৈতিক দল ব্যানার ও ফেস্টুন সাঁটাচ্ছে তাদের নিয়ে একটি বৈঠকের মাধ্যমে আইনটি জানানো। ময়মনসিংহ সিটিকে নিয়ে আমরা সুন্দর তিলোত্তমা নগরীর যে আকাঙ্খা করছি তার অন্তরায় ব্যানার ও ফেস্টুন বড় বাঁধা। আধুনিক সভ্যতায় কোন অবস্থাতেই সৌন্দর্য্য ও পরিবেশের জন্য হুমকি হয় এমন কিছু মেনে নেয়া যায় না।”

এব্যাপারে ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকতা মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন ও প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা মো. আরিফুর রহমানের সাথে ময়মনসিংহ লাইভ এর টিম কথা বলতে চাইলে তাদের কেউই কথা বলতে রাজি হননি।

ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশন কর্তৃপক্ষ শীঘ্রই জনসচেতনতা বৃদ্ধির পাশাপাশি নগরজুড়ে সাঁটানো পোস্টার, ব্যানার, ফেস্টুন ও অবৈধ বিলবোর্ড অপসারণে যথাযথ ব্যবস্থা নিবে এমনটি আশা করছেন নগরবাসী।

নিউজটি শেয়ার করতে নিচের বাটনগুলোতে চাপ দিন

এই বিভাগের আরও সংবাদ
©MymensinghLive
প্রযুক্তি সহায়তা: ময়মনসিংহ আইটি পার্ক
আপনি কি ময়মনসিংহের খবর সবার আগে পেতে চান? অনুগ্রহ করে হ্যাঁ অপশনে ক্লিক করুন না হ্যাঁ