জামায়াতে ইসলামীর ৩৬ নেতা-কর্মী গ্রেফতার, নিন্দা ও প্রতিবাদ

টাংগাইলে গোপালপুরে জামায়াতে ইসলামীর ৩৬ জন নেতা-কর্মীকে গ্রেফতার করে জেলে পাঠানোর ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সহকারী সেক্রেটারী জেনারেল মাওলানা রফিকুল ইসলাম খান।

আজ বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, ‘টাংগাইল জেলার গোপালপুরে গত ১০ সেপ্টেম্বর আশুরা উপলক্ষ্যে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় যাওয়ার পথে পুলিশ সম্পূর্ণ অন্যায়ভাবে জামায়াতে ইসলামীর ৩৬ জন নেতা-কর্মীকে গ্রেফতার করে তাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে তাদের জেলে পাঠিয়েছে। আমি এ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।’

বিবৃতি বলা হয়, ‘জামায়াতে ইসলামীর নেতা-কর্মীদের গ্রেফতার করার পর গত ১১ সেপ্টেম্বর টাংগাইলের পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায় এক সাংবাদিক সম্মেলনে ‘বঙ্গবন্ধু সেতুতে নাশকতার পরিকল্পনার জন্য জামায়াত-শিবিরের নেতা-কর্মীরা একত্রিত হয়েছিল’ মর্মে যে ভিত্তিহীন মিথ্যা বক্তব্য দিয়েছেন তার নিন্দা জানানোর কোন ভাষা নেই। তিনি কেমন করে এ ধরণের ভিত্তিহীন মিথ্যা বক্তব্য দিতে পারলেন তা আমাদের বোধগম্য নয়। তার বক্তব্যের মধ্যে সত্যের লেশমাত্রও নেই। গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে তাদের অন্যায়ভাবে জেলে আবদ্ধ করে রাখার হীন রাজনৈতিক উদ্দেশ্যেই তিনি নির্জলা মিথ্যা বক্তব্য দিয়েছেন। গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিদের নাশকতার পরিকল্পনার জন্য একত্রিত হওয়ার প্রশ্নই আসে না।’

বিবৃতিতে আরো বলা হয়, ‘জামায়াতের নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মিথ্যা বক্তব্য দেয়া থেকে বিরত থেকে অবিলম্বে তাদের মুক্তি দেয়ার জন্য আমি সরকারের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।’

প্রেস বিজ্ঞপ্তি

sadman travels