কিশোরগঞ্জের পাগলা মসজিদে ৫ মাসে জমা পড়েছে ২ কোটি ৩৮ লাখ টাকা

নিজস্ব প্রতিনিধি8:54 pm, January 23, 2021

কিশোরগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী পাগলা মসজিদে এবার ৫ মাসে জমা পড়েছে ২ কোটি ৩৮ লাখ ৫৫ হাজার ৫৪৫ টাকা। মসজিদের দানবাক্সে মিলেছে স্বর্ণালঙ্কার ও বিদেশি মুদ্রা।

দেশের অন্য কোনো মজজিদের দানবাক্সে দানের এমন নজির না থাকলেও এটি একেবারেই ব্যতিক্রম। এর আগে ২০২০ সালের ২৩ আগস্ট একই মসজিদের দানবাক্সে পাওয়া যায় ১ কোটি ৭৪ লাখ ৮৩ হাজার ১০৯ টাকা।

মসজিদ সূত্রে জানা গেছে, আজ শনিবার (২৩ জানুয়ারি) মসজিদের ৮টি লোহার দানবাক্স খোলা হয়। স্থানীয় একটি ব্যাংকের কর্মকর্তা-কর্মচারিসহ মসজিদ ও মাদরাসার শতাধিক শিক্ষার্থী অংশ নেয় গণনার কাজে। কিশোরগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. আবদুল্লাহ আল মাসউদের নেতৃত্বে কালেক্টরেটের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটদের উপস্থিতিতে টাকা গণনা শেষ করা হয়।

পাগলা মসজিদে দান করলে মনের ইচ্ছা পূরণ হয়, এমন বিশ্বাসে মুসলমান ছাড়াও অন্যান্য ধর্মের লোকজন এখানে দান করে থাকেন। নগদ টাকা ছাড়াও পাওয়া যায় চাল, ডাল, গবাদিপশু আর হাঁস-মুরগি। এসব পণ্য নিলামে বিক্রি করে জমা করা হয় মসজিদের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে।

পাগলা মসজিদ পরিচালনা কমিটির সভাপতি মোহাম্মদ শামীম আলম বলেন, মসজিদের আয় থেকে নিজস্ব খরচ মিটিয়েও জেলার বিভিন্ন মসজিদ, মাদরাসা, এতিমখানাসহ গরীব ছাত্রদের মাঝে ব্যয় করা হয়। টাকা দেয়া হয় নানান সামাজিক কাজে।

প্রসঙ্গত, ৫০ বছর আগে পাগলবেশে এক পুরুষ নরসুন্দা নদীর মাঝখানে পানিতে মাদুর পেতে আশ্রয় নেন। তার মৃত্যুর পর সমাধির পাশে এই মসজিদটি গড়ে ওঠে। পরে মসজিদটি পাগলা মসজিদ নামে পরিচিতি পায়।

লাইভ

rss goolge-plus twitter facebook
Developed by

সম্পাদক: মো. আব্দুল কাইয়ুম

সেলফোন: ০১৩০৪১৯৭৭৪৪

ই-মেইল: mymensinghlive@gmail.com

টপ